স্পোর্টস ডেস্ক

লিওনেল মেসি ও অ্যাঙ্গেল ডি মারিয়া

চলতি বছরের জুন-জুলাইয়ে অনুষ্ঠিত হওয়া কোপা আমেরিকা টুর্নামেন্টে ভাল করতে পারেনি লিওনেল মেসির আর্জেন্টিনা। চির প্রতিদ্বন্দ্বী ব্রাজিলের কাছে সেমিফাইনালে হেরে বিদায় নিয়েছিল আলবিসেলেস্তেরা। দলের এমন ব্যর্থতায় জাতীয় দল থেকে সাময়িক অবসর ঘোষণাও করেছিলেন মেসি। কোপায় হেরে মন ভাঙা মেসি তার সতীর্থদের উদ্দেশে কিছু কথা বলেছিলেন, যা শুনে কেঁদেছিল পুরো আর্জেন্টিনা দল। সেদিন চোখের জল ফেলেছিলেন আর্জেন্টিনার কোপা আমেরিকা টিমের অন্যতম সদস্য অ্যাঙ্গেল ডি মারিয়াও, এতদিন পর এসে বিষয়টি জানালেন তিনি।

গত জুলাইয়ের ৩ তারিখে হওয়া সেমিফাইনালে ব্রাজিলের মুখোমুখি হয় আর্জেন্টিনা। এ ম্যাচে গ্যাব্রিয়েল জেসুস ও রবার্তো ফিরমিনোর গোলে ২-০ গোলের হার নিয়ে মাঠ ছাড়ে আর্জেন্টিনা। আর্জেন্টিনার অধিনায়ক মেসি এ ব্যর্থতায় কার্যত ভেঙে পড়েন। সতীর্থদের উদ্দেশে বলেন বেশ কিছু আবেঘঘন কথা। সম্প্রতি ইএসপিএনকে দেওয়া এক সাক্ষাতকারে এমনটিই জানিয়েছেন ডি মারিয়া।

ডি মারিয়া বলেন, ‘ব্রাজিলের কাছে হারের পর সুন্দর কিছু কথা বলেছিল মেসি। দল নিয়ে সে নিজের গর্বের কথা জানিয়েছিল। (জাতীয় দল ছাড়া) আমাদের খুব বেশি একসঙ্গে থাকা হয় না। অনেকে ডাক পেয়েছে প্রথমবারের মতো। কিন্তু তারপরও মনে হয়েছিল, আমরা কত দিন ধরে একসঙ্গে আছি।’

মেসির সেদিনের কথা জানিয়ে তিনি বলেন ‘সে (মেসি) বলেছিল, আমরা প্রথম দিন থেকে সবাই একই পথে লড়াই করেছি। জার্সির প্রতি তরুণদের নিবেদন দেখে সে ভীষণ গর্ববোধ করেছিল। কোপা আমেরিকায় যতটুকু নিংড়ে দিয়েছে তাদের প্রাপ্যটা এর চেয়েও, বেশি বলেছিল মেসি। তার কথা শেষে কেউ কান্না লুকোতে পারেনি। বিশেষ করে তরুণেরা। কথাগুলো সবার হৃদয় ছুঁয়ে গিয়েছিল।’

লিওনেল মেসি ক্লাবের হয়ে বড় বড় সব শিরোপা জিতলেও দেশের হয়ে কোনো আন্তর্জাতিক শিরোপা জিততে পারেননি। মেসিকে এ নিয়ে প্রচুর সমালোচনা শুনতে হয়। জাতীয় দলে মেসি তার শতভাগ দেননা,এমন সমালোচনাও শুনতে হয় তাকে। আর এ প্রসঙ্গটিও এড়িয়ে যাননি ডি মারিয়া।

ইএসপিএনকে তিনি বলেন, ‘অনেক সমালোচনাই হয়। সে জাতীয় সংগীত গায় না, কথা বলে না। কিন্তু কোপা আমেরিকা ছিল আলাদা। সে নিজেকে প্রমাণ করেছে। আমার কাছে খুশির বিষয় হলো, সে দলের সামনে ও সংবাদকর্মীদের সঙ্গে যেভাবে কথা বলেছে। আমি এই মেসিকে পছন্দ করি।’